বিপন্ন উদ্ভিদ তমাল - NSSB

বিপন্ন উদ্ভিদ তমাল

তমালের স্ত্রী পুস্প

তমালের স্ত্রী পুস্প

ছাত্রঃ কপোল ভিজিয়া গেল নয়নের জলে….. স্যার কপোলটা কি জিনিস?
শিক্ষকঃ ইয়ে.. মনে হয় প্রিন্টিং ভুল; ওটা কপাল হবে। ঠিক করে নিয়ে পড়..
ছাত্রঃ কপাল ভিজিয়া গেল নয়নের জলে …. স্যার নয়নের জলে কপাল কিভাবে ভিজে?
শিক্ষকঃ ওহহো… এরা দেখি প্রিন্টিং ভুলে একটা লাইনও বাদ দিয়ে দিয়েছে…. এটা হবে..
কপাল ভিজিয়া গেল নয়নের জলে,
ঠ্যাং দুটি বাঁধা ছিল তমালের ডালে….
(উল্লেখ্য কপোল মানে চিবুক বা ললাট যেটা শিক্ষক জানতেন না)

এই কৌতুক টি শুনেননি এমন লোকের সংখ্যা হয়ত খুব বেশী হবে না কিন্তু তমাল গাছ সরাসরি দেখেছেন এমন লোকের সংখ্যা যে কম হবে আমি এটা নিশ্চিত।

তমাল Ebenaceae পরিবার ভুক্ত ছোট আকারের কন্টকাকির্ন ধুসর বর্ণের কান্ডযুক্ত পর্ণমোচী বহুবর্ষজীবী উদ্ভিদ। পত্র উপবৃত্তাকার কখনো কখনো হার্ট আকৃতির হয়ে থাকে। পত্র-উপরিতল মসৃণ ও পত্র-নিন্মতল ভেলবেটি। পুং ও স্ত্রী পুস্প আলাদা আলাদা গাছে জন্মে। পুং পুস্প গুচ্ছাকারে Cluster অবস্থায় জন্মে, স্ত্রী পুস্প একক অবস্থায় জন্মে ফুলের রঙ সাধারনত creamy white বা greenish-white ও নলাকার ৪ পাপড়ি বিশিস্ট যা পিছন থেকে বাকা। বৃত্যংশ গুলো ডিম্বাকার। পুং পুস্পের পরাগকেশর বা পুংকেশর Flower tube এর চেয়ে লম্বা হয়। ফল সাধারনত বর্তুলাকার অনেকটা চেরীর মত যা পাকার পর হলুদ রঙ ধারন করে। মার্চ থেকে শুরু হয়ে এপ্রিল পর্যন্ত এদের পুস্পায়ন ঘটে।

এর গনের নাম Diospyros যা প্রাচীন দু’টো গ্রীক শব্দ থেকে নেয়া হয়েছে। “Dios” ও “pyros” যার বাংলা শব্দার্থ হলো ঐশ্বরিক ফল ও ঐশ্বরিক খাদ্য। এছাড়াও কেউ কেউ এর শব্দার্থ করেছেন “Wheat of Zeus”. যাই হোক Diospyros নিয়ে ব্যখ্যা অনেকটাই কনফিউজিং যেমন অনেকেই একে ব্যখ্যা দিয়েছেন “God’s pear” এবং Jove’s fire” বলে।

ক্যামোটেক্সোনোমিকেল বিশ্লেষনে দেখা যায় তমালের পাতায় isoarborinol methyl ether ও fatty esters পাওয়া যায় যা নিন্ম লিখিত অর্গানিজমের প্রতি এন্টি মাইক্রোবিয়াল ফলাফল প্রদর্শন করে। Escherichia coli, Pseudomonas aeruginosa, Candida albicans, Staphylococcus aureus ও Trichophyton mentagrophytes. এছাড়াও এর উপক্ষারে Anti-inflammatory ও analgesic properties বিদ্যমান।

তমালের (Diospyros montana) ফল বিষাক্ত, এর ফোড়ায় ব্যবহার করা হয়। এর পাতা যদি বেশী পরিমান পানিতে ফেলে রাখা হয় তাহলে টক্সিসিটি হয়ে মাছ মারা যায়। তবে এই উদ্ভিদের বিভিন্ন অংশ fever, neuralgia, pleurisy, pneumonia, menorrhagia ও puerperal fever, diarrhoea and poisonous spider-bite এ ব্যবহার করা হয়। (Yusuf et al. 2009). বাকলের নির্যাস anti-inflammatory, antipyretic and analgesic হিসেবে ব্যবহার করা হয়। (Asolkar et al.,1992).

Neuralgia- এটি নার্ভ নস্ট হয়ে যাওয়ার কারনে হাতে পায়ে ব্যাথা ও জ্বালা অনুভুত হওয়া।
Pleurisy- এটি টিস্যু লেয়ারের (pleura) ইনফ্লামেশন যা ইনার চেস্ট ও lungs এ হয়ে থাকে।
Menorrhagia- এটি একটি মেডিক্যাল টার্ম। মেয়েদের মাসিকের সময় অতিরিক্ত বা স্বাবাভিকের তুলনায় অনেক বেশী ব্লিডিং ও অনেকদিন ধরে এই ব্লিডিং চলতে থাকা।
Puerperal fever- বাচ্চা জন্ম দেয়ার সময় বা এবোরশানের কারনে মহিলাদের জননাঙ্গে যদি ইনফেকশান হয় ও জ্বর হয়।
Yusuf et al- ইউসুফ ও তাঁর দল।

সতর্কীকরণঃ যে কোনো ভেষজ ঔষধ নিজ দায়িত্বে ব্যবহার করুন।

# ছবিগুলো গুগলের সৌজন্যে।